ভুল রিলেশনশিপ

0
437

১.যদি দেখেন সে মানুষটি আট -দশটা মানুষের সাম
আপনার হাত ধরতে ভয় পাচ্ছে… তাহলে এটাও শিওর থাকুন ফিউচারে আপনার হাত ছাড়তে একটুও দ্বিধা বোধ করবেনা।তাই আজই সরে আসুন…

২.যখন দেখবেন মানুষটিকে আপনি যখনই পরিবারকে জানাতে বলবেন সব।সে ইগনোর করে বা রেগে যায় বা বাহানা দেয়।তাহলে বলব সরে আসুন…সব ফেইক।পরে পস্তাবেন…

৩.যখন সে বলবে,”তুমি মোটা হয়ে গেসো,তোমাকে শুকনাতেই সুন্দর লাগে,ডাইট করো…” তখন আর ডানবামে তাকানোর দরকার নেই।সোজা সরে আসুন।কারণ যখন আপনি প্রেগন্যান্ট হবেন,মোটা হবেন তখন সে পরকীয়া করতে দ্বিধাবোধ করবে না…

৪.যখন বলবে,”তুমি কালো হয়ে যাচ্ছো…নিজের কেয়ার করো”…তখন বলব সরে আসুন।রূপ দিনদিন বাড়েনা…একটাসময় গিয়ে কমে যায়।তখন সে আপনাকে ছাড়বে না তার গ্যারান্টি নেই…

৫.যখন সে বাকিদের সাথে তোমাকে পরিচয় করাতে দ্বিধাবোধ করবে…সরে আসুন।

৬.সে যদি বলে,তার মাঝে আর বন্ধুদের মাঝে কোন একজনকে চুস করতে।তাহলে বলব সরে আসুন।কারণ মানুষটা আজীবন আপনার সাথে থাকবে তার গ্যারান্টি নেই…কিন্তু দুঃসময় এ বন্ধুগুলো আজীবন পাবেন পাশে…

৭.সবচেয়ে বড় বিষয় হলো সে যাতে ভীতু না হয়…এ বিষয়টা খেয়াল রাখবেন।রিকুয়েষ্ট আমার…কারণ ফিউচার এ যখন শক্ত হয়ে পাশে থাকার মত অবস্থা হবে সে হাত ছেড়ে দিবে…তাই এটা আমার রিকুয়েষ্ট…

৮.ছেলে হোক বা মেয়ে, আপনার জীবনসঙ্গীর মায়ের বিহেভটা প্লিজ জেনে নিবেন…মা খারাপ মানে জীবনটা এখানেই শেষ…তাই রিলেশনশিপ এ থাকাকালীন এ বিষয়টা জেনে নিলে সবচেয়ে বেস্ট।কারণ যদি মায়ের বিহেভ ভালো হয় তাহলে ছেলে/মেয়ে এমনিই ভলো হবে…

৯.সবচেয়ে বড় কথা হলো পরিবারকে জানিয়ে রাখা।পরিবার কে সবাই জানাতে পারেনা।পারলেও অনেকের পরিবার মানে না।তখন পরিবার এর দোহাই দিয়ে এত বছরের সপ্ন,সম্পর্ক সব শেষ…

দিনশেষে আপনি একা ই থাকবেন…বিশ্বাসঘাতকটা ঠিকই বেঁচে যাবে…

তাই অনুরোধ থাকলো একটু বিষয়গুলো দেখবেন সবাই…

ভুল কথা বলে থাকলে ক্ষমাসুন্দর দৃষ্টিতে দেখবেন…

লেখাঃMsb Borsha Tara

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here