তোমাকে_চাই পার্ট_৪

0
1972

তোমাকে_চাই পার্ট_৪
#আরবি_আরভী

কথাটা শুনা মাত্রই এক দৌড়ে রেহান ভাইয়ার রুমে এসে দেখি হাতে ব্যান্ডেজ করা অবস্থায় উনি শুয়ে আছেন তাই তাকে আর ডিস্টার্ব করলাম না নিজের ঘরে গিয়ে ফ্রেশ হয়ে নিলাম,,,,,রাতে আমি,চৌতি আপু আর রিয়া আপু একসাথে শুয়েছি সবাই ঘুমিয়ে কাঠ হয়ে গেছে কিন্তু আমার চোখে ঘুম নেই সাড়ারাত সুধু রেহান ভাইয়ার কথা ভাবছি উনি শত অপমান করা সতেও কেন আমি তাকে এত্ত ভালবাসি,কেন কেন??।।আর শব্দহীনভাবে কাঁন্না করছি হতাৎ করে মাঝ রাতে কোথা থেকে কিসের যেন ঠাসসসসসসস-ঠুসসসসসসস করে বিকট শব্দ আসতে থাকল আমি তো ভয়ে কাঁপা-কাঁপি সুরু করে দিয়েছি,,, আল্লাহ রে ভূত-টূত নাতো।। তার সাথে ভেসে আসতে লাগল এক অজানা দুরগন্ধ তারপর আর বুজতে বাকি রইল না যে আমার পাশে শুয়ে থাকা রিয়া আপুমনি পাদ মেরেছেন আমি নাকে ধরে তিনাকে ধাক্কা দিতেই তিনি ঘুমের ঘরে কথা বলতে লাগলেন,,,
-এই রেহান ছাড়না প্লিজ কেউ এসে পরবেতো প্লিজ ছেড়ে দাও,,,
কথাটা শুনে এমন মনে হল যেন রেহান ভাইয়া তাকে জড়িয়ে ধরেছেন আর উনি ছারানোর চেষ্টা করছেন,,সখ কত আমি ভীষণ রেগে রিয়া আপুকে ডাকতে থাকলাম,,, (এমনিতেই পাদ দিয়ে আমাকে অজ্ঞান করার অবস্থা এখন আবার রেহান ভাইয়াকে নিয়ে সপ্ন দেখানো হচ্ছে সাহস কত),,,

-এই রিয়া উঠ,,,,,উঠ ডাইনী (জোড়ে জোরে ধাক্কা দিয়ে),,রিয়া আপু ঘুম থেকে উঠে ঘুম ঘুম চোখে আমার দিকে তাকিয়ে জিজ্ঞাসা করলেন,,
-কি হইছে নিসা তুমি আমাকে এইভাবে ডাকছ কেন আর তুমি এখনো ঘুমাওনি?
আমি ঘুমের ব্যাপারটা লোকাতে তাকে বললাম,,
-তুমি অনেক জোড়ে নাক ডাক আপু,,তোমার নাক ডাকার শব্দে আমি ঘুম থেকে উঠে গেছি?
-কি বল? আমি নাক ডাকি?
-হুম অনেক জোড়ে জোড়ে?
-Oh My God কালকেই ডাক্তারের কাছে যেতে হবে,,তুমি কিন্তু কাউকে বল না, বিশেষ করে রেহানকে?
-ওকে আপু কাউকে বলব না,শুয়ে পর Good Night?
তারপর পাশ ফিরে সুয়ে মুখ চেঁপে কতখন হাসার পর ঘুমিয়ে পরলাম।।

পরেরদিন স্কুল থেকে ফিরে ফ্রেশ হয়ে রেহান ভাইয়ার রুমে যেতেই দেখলাম আমার সব কাজিনরা উনার রুমে, ব্যাপারটা কি?পরে দেখলাম চৌতি আপু মিঠি আপু তিশা আপু রেহান ভাইয়া (হাত ব্যান্ডেজ করা অবস্থায়) খেলছিল আর গল্প করছিল,,,আর একজন খেলোয়াড় লাগবে তারপর রেহান ভাইয়া সবার উদ্দেশ্যে বললেন যে কে খেলবে??আমি কথাটা শুনে মনে মনে ভাবলাম আপনার সাথে খেলার এত্ত বড় সুযোগ হাত ছাড়া করে কে তাই চিৎকার দিয়ে আমি খেলব বলে রেহান ভাইয়ার দিকে এগিয়ে গেলাম তখন পিছন থেকে রিয়া আপুও বলে উঠলেন”আমি”,, সাথে সাথে মেজাজটা 49 হয়ে গেল আমার তারপর রেহান ভাইয়া আমার দিকে তাকিয়ে বলেছিলেন,,
-তুই তো একটা পিচ্চি মেয়ে তুই কি খেলবি আমাদের সাথে,,,হেরে গেলে কেঁদে দিবি তার থেকে ভালো তুই রুমে গিয়ে পড়তি বস,যা,,,

সাথে সাথে ঘরবর্তি মানুষ হাসাহাসি শুরু করল।।
তারপর রিয়া আপুকে ডেকে রেহান ভাইয়া তাদের গ্রুপ এ এড দিল রিয়া আপুতো আকাশের চাঁদ পাওয়ার খুশি নিয়ে দৌড়ে রেহান ভাইয়ার কাছে গেল,,আমি অপলকভাবে রেহানের দিকে তাকিয়ে ছিলাম আর কাঁন্না করছিলাম যা কেউ লক্ষ্য করেনি সবাই কত হাসাহাসি করছে আনন্দ করছে তাই হয়তো কারো আমার দিকে তাকাবার সময় নাই অনেক বেশি কষ্ট পেয়েছিলাম ঐ দিন,,,,

তার কয়েকদিন পর এক দুপুর বেলা আম্মু আমাকে চাচিকে(রেহান ভাইয়ার আম্মু) ডেকে আনতে বললেন কিন্তু চাচিকে ঘরে পেলাম না হয়তো কোথাও গেছে তাই আমিও ফিরে আসছিলাম ঠিক তখনি রেহান ভাইয়া ওয়াশরুম থেকে চাচিকে ডাকচ্ছেন,,,
-আম্মু আম্মু,,,,,,,,,,,
উনি হয়তো সাওয়ার নিচ্ছেন,, রুমে কেউ নাই তাই আমি ভাবলাম উনার সাথে একটু দুষ্টুমি করা যাক তাই আমি ওয়াশরুমের পাশে এসে উত্তর দিলাম,,
-হুমমমম,,,(মুখ চেঁপে হাসছি?)
-আম্মু আমাকে একটু শাম্পু করে দাও (ওয়াশরুমের দরজাটা খুলে দিয়ে)
-.…………. ( আমি টাস্কি খেয়ে আছি)
পরে ভাবলাম উনি তো সুধু আমারি আর উনার হাতে ব্যান্ডেজ করা এতটুকু হেল্প তো করতেই পারি।।তাই আর কিছু না ভেবে উনার সাথে ওয়াশরুমে ডুকে দরজার lockটা লাগিয়ে সামনের দিকে তাকাতেই দেখি ফরসা শরীরটায় উনি খালি গায়ে নিচে একটা সাদা টয়েল পরে, মুখে সাবান মাখানু অবস্থায় বসে আছেন।। খালি গা থেকে টপ টপ করে পানি পরছে এমন দৃশ্য দেখে নিজেকে সামলানো অনেক মুশকিল,, অনেক বেশি Hot লাগছিল উনাকে,,, , আমি সুধু তার দিকে হা করে এক দৃষ্টিতে তাকিয়ে আছি আমার কানে যেন একটাই সুর ভেসে আসছে,,

পরে না চোখের পলক,,,,,,
কি তোমার রূপের জলক,,,
দোহায় লাগে দেহটি তোমার একটু আড়াল করো,,,
আমি জ্ঞান হারাব মরেই যাব বাঁচাতে,,,
পারবে না কেউ,,,,,,,
,চলবে

এখনই জয়েন করুন আমাদের গল্প পোকা ফেসবুক গ্রুপে।
আর নিজের লেখা গল্প- কবিতা -পোস্ট করে অথবা অন্যের লেখা পড়ে গঠনমূলক সমালোচনা করে প্রতি মাসে জিতে নিন নগদ টাকা এবং বই সামগ্রী উপহার।
শুধুমাত্র আপনার লেখা মানসম্মত গল্প/কবিতাগুলোই আমাদের ওয়েবসাইটে প্রকাশিত হবে। এবং সেই সাথে আপনাদের জন্য থাকছে আকর্ষণীয় পুরষ্কার।

গল্পপোকার এবারের আয়োজন
ধারাবাহিক গল্প প্রতিযোগিতা

◆লেখক ৬ জন পাবে ৫০০ টাকা করে মোট ৩০০০ টাকা
◆পাঠক ২ জন পাবে ৫০০ টাকা করে ১০০০ টাকা।

আমাদের গল্প পোকা ফেসবুক গ্রুপে জয়েন করার জন্য এই লিংকে ক্লিক করুন: https://www.facebook.com/groups/golpopoka/?ref=share

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে